বুধবার, ০৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৩:১৮ পূর্বাহ্ন

খবরের শিরোনাম :
রংপুর আইএইচটি ক্যাম্পাস থেকে চুরি যাওয়া মালামাল সহ ৩ চোর গ্রেফতার তিলোত্তমা নগরী গড়ার স্বপ্ন রংপুরকে….মেয়র মোস্তফা রংপুর মেডিকেলের বিভিন্ন অনিয়ম ও দূর্নীতির অভিযোগ তদন্তে দুদক বর্তমান পরিস্থিতিতে সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব হবে বলে মনে হয় না….জি এম কাদের পৌরসভার জনবল দিয়ে রংপুর সিটি কর্পোরেশন চলছে- মেয়র মোস্তফা জিএম কাদের চেয়ারমান হিসাবে দায়িত্ব পালনে বাধা না থাকায় রংপুর নগরীতে জাতীয় পার্টির মিষ্টি বিতরণ। নামাজ পড়ে এসে দেখেন ৫ লাখ টাকা নেই সততার সাথে নিষ্ঠার সাথে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পরামর্শ নিয়ে নিরলস ভাবে কাজ করবো.. রসিক মেয়র মোস্তফা হারাগাছে ডাম্পট্রাকের চাপায় পথচারী নারী নিহত কাউনিয়ায় পুকুরে ফুটবল তুলতে গিয়ে পানিতে ডুবে শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যু
জাল দলিলে জমি আত্মসাৎ করার চেষ্টায় মামলা দায়ের লিপি খান ভরসার বিরুদ্ধে

জাল দলিলে জমি আত্মসাৎ করার চেষ্টায় মামলা দায়ের লিপি খান ভরসার বিরুদ্ধে

নিউজ ডেক্সঃ

জাল দলিল করে জমি আত্মসাৎ করে দখল নেয়ার চেষ্টায় লিপ্ত থাকায় লিপি খান ভরসা ও তার স্বামী সাইফুল উদ্দিন ভরসাসহ ৬ জনকে আসামী করে তাদের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন শফিকুল ইসলাম ভরসা।
মামলা সুত্রে জানা যায়, রংপুরের প্রতিষ্ঠিত ব্যবসায়ী এবং জাতীয় সংসদের সংসদ সদস্য প্রয়াত করিম উদ্দিন ভরসা ২০০৭ সাল থেকে মানসিক রোগে ভুগছিলেন। সেই সুযোগে লিপি খান এবং সাইফুল উদ্দিন ভরসা সম্পত্তি ভোগ দখলের লোভে বিভিন্ন প্রকার ষড়ষন্ত্রে লিপ্ত হন। এমতাবস্থায় করিম উদ্দিন ভরসার শারিরীক ও মানসিক ভারসাম্যহীনতার সুযোগ নিয়ে জনৈক আফলাতুন নিজেকে করিম উদ্দিনের স্ত্রী দাবী করে পাসপোর্টে স্বামী হিসেবে উল্লেখ করে আবেদন করেন। সেই সময়ে ১১-১০-১৫ সালে বাংলাদেশ পুলিশের বিশেষ শাখা তদন্ত সাপেক্ষে জানায় যে, করিম উদ্দিন ভরসা ভারসাম্যহীন ব্যক্তি। ফলে তারদ্বারা কোনরুপ দলিল সম্পাদন বৈধ হবে না। পরবর্তিতে সাইফুল উদ্দিন ভরসা সুকৌশলে নিজ জিম্মায় করিম উদ্দিন ভরসাকে নেয় এবং যাবতীয় সম্পত্তি আত্মসাৎ করার ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হতে থাকেন।
এদিকে করিম উদ্দিন ভরসা ৯২ বছর বয়সে বার্ধক্যজনিত কারনে বিভিন্ন রোগে ভুগছিলেন এবং সম্পুর্ণরুপে মানসিক শক্তি লোপ পায় তার। এ অবস্থায় কোভিড ১৯ ভাইরাসে আক্রান্ত হলে ২৬-০৬-২২ তারিখে ঢাকার এভার কেয়ার হসপিটালে ভর্তি করা হয়। কিছুদিন চিকিৎসা চললে পুরোপুরি সুস্থ্য না হতেই ০৮-০৭-২২ তারিখে সাইফুল উদ্দিন ভরসা জোরপূর্বক ছাড়পত্র নিয়ে বাসায় নিয়ে যান এবং লুকিয়ে রাখেন। আবারো গুরুতর অসুস্থ্য হয়ে পরলে পূণরায় এভার কেয়ার হসপিটালে ১৪-০৭-২২ তারিখে ভর্তি করা হয় এবং ২৩-০৭-২২ তারিখে কোভিডে আক্রান্ত অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন।
সাইফুল উদ্দিন ভরসা মৃত্যুপথযাত্রী করিম উদ্দিন ভরসার নাম ব্যবহার করে রংপুর সদর সাবরেজিষ্টারের সাথে যোগসাজে অছিয়ত দলিল সম্পাদন করেন। অথচ সেই সময়ে করিম উদ্দিন ভরসা সঙ্গাহীন ছিলেন। দলিল অছিয়ত করার মতো কোন অবস্থাই ছিলো না তার। শুধু তাই না, করিম উদ্দিন ভরসা অসুস্থ্য থাকাকালীন সময়ে তার অন্য ছেলে মেয়ে এবং নাতি নাতনিসহ আত্মীয় স্বজনকে দেখার করার সুযোগ দেয় নাই।
এ ঘটনায় রংপুর চিপ মেট্রোপলিটন আদালতে মামলা করেন শফিকুল ইসলাম ভরসা। মামলায় লিপি খান ভরসাকে ১ নং আসামী, সাইফুল উদ্দিন ভরসাকে ২ন ং আসামী, সাবরেজিষ্টার রামজীবন কুন্ডকে ৩ নং আসামী, দলিল লেখক মনিরুল ইসলাম কে ৪ নং আসামী এবং মুনসি পাড়ার পলাশ কে ৫ নং আসামী করা হয়।

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

© ২০২০-২২ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | এনপিনিউজ৭১.কম
Developed BY Rafi It Solution